ঢাকা ০১:১০ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

২০ বছর পর কোচ ছাড়া খেলবেন জোকোভিচ!

স্পোর্টস ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৯:২৫:৫৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪ ১১ বার পড়া হয়েছে
ডেইলি আর্থ অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

গত বছর স্বপ্নের মতো কাটিয়েছেন নোভাক জোকোভিচ। তাতে নিজেকে নিয়ে গেছে নতুন উচ্চতায়। ২৪ গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ের অনন্য কীর্তি গড়েন সার্বিয়ান এই কিংবদন্তি। প্রায় ২০ বছরের এই পথচলায় সব সময় একজন কোচকে পাশে পেয়েছেন তিনি।

কিন্তু এবার সেই চিন্তাধারা থেকে সরে আসতে চাইছেন জোকোভিচ। কোচ ছাড়াই পথচলার সিদ্ধান্ত নিতে চলেছেন ৩৬ বছর বয়সী এই টেনিস তারকা।
জোকোভিচ সর্বশেষ কাজ করেছেন ক্রোয়েশিয়ান কোচ গোরান ইভানিসেভিচের সঙ্গে। পাঁচ বছর ধরে এই কোচের অধীনে ছিলেন সার্বিয়ান তারকা।

গত মাসে ইন্ডিয়ান ওয়েলস ওপেনে তৃতীয় রাউন্ড থেকে বিদায় নেওয়ার পর গোরানের সঙ্গে চুক্তি বাতিল করে দেন।
এই মাসের শুরুতে মন্টে কার্লো মাস্টার্সে জোকোভিচের সঙ্গে কাজ করেছেন ডাবলসের সাবেক নাম্বার ওয়ান নেনাদ জিমনজিক। তার সঙ্গে কাজ এগিয়ে নেবেন কি না তা এখনো ভাবনায় রেখেছেন জোকোভিচ।

গত বছরের নৈপুণ্যে ক্রীড়াবিশ্বের বর্ষসেরা পুরুষ খেলোয়াড়ের পুরস্কার লরিয়াস ওয়ার্ল্ড স্পোর্টস অ্যাওয়ার্ড জিতেছেন জোকোভিচ।

সেখানে এসেই তিনি জানিয়েছেন আগামীর ভাবনা, ‘আমার কোচ থাকা উচিত কি না তা আমি বিবেচনা করছি। জিমনজিকের সঙ্গে আমার খুব ভালো সময় কেটেছে। আমরা একসঙ্গে কাজ করার ব্যাপারে কথা বলছি। দেখা যাক, শিগগিরই আমি আমার সিদ্ধান্ত নেব।’
কোচেরও যে দরকার নেই এমনটা অবশ্য ভাবছেন না জোকোভিচ, ‘এমন না যে আমার কোচের প্রয়োজন নেই।

একটি মানসম্মত দলের জন্য কোচের প্রয়োজন আছে। কিন্তু আমি মনে করি, ক্যারিয়ারে এখন যে পর্যায়ে আছি, তাতে কোচ না থাকাটাও একটি বিকল্প পন্থা।’
আগামী মাসে শুরু হবে ফ্রেঞ্চ ওপেন। এরপর উইম্বলডন, অলিম্পিক গেমসের পর আছে ইউএস ওপেন। এসবের প্রস্তুতি নিতেই মাদ্রিদ ওপেনে না খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন জোকোভিচ।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

২০ বছর পর কোচ ছাড়া খেলবেন জোকোভিচ!

আপডেট সময় : ০৯:২৫:৫৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪

গত বছর স্বপ্নের মতো কাটিয়েছেন নোভাক জোকোভিচ। তাতে নিজেকে নিয়ে গেছে নতুন উচ্চতায়। ২৪ গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ের অনন্য কীর্তি গড়েন সার্বিয়ান এই কিংবদন্তি। প্রায় ২০ বছরের এই পথচলায় সব সময় একজন কোচকে পাশে পেয়েছেন তিনি।

কিন্তু এবার সেই চিন্তাধারা থেকে সরে আসতে চাইছেন জোকোভিচ। কোচ ছাড়াই পথচলার সিদ্ধান্ত নিতে চলেছেন ৩৬ বছর বয়সী এই টেনিস তারকা।
জোকোভিচ সর্বশেষ কাজ করেছেন ক্রোয়েশিয়ান কোচ গোরান ইভানিসেভিচের সঙ্গে। পাঁচ বছর ধরে এই কোচের অধীনে ছিলেন সার্বিয়ান তারকা।

গত মাসে ইন্ডিয়ান ওয়েলস ওপেনে তৃতীয় রাউন্ড থেকে বিদায় নেওয়ার পর গোরানের সঙ্গে চুক্তি বাতিল করে দেন।
এই মাসের শুরুতে মন্টে কার্লো মাস্টার্সে জোকোভিচের সঙ্গে কাজ করেছেন ডাবলসের সাবেক নাম্বার ওয়ান নেনাদ জিমনজিক। তার সঙ্গে কাজ এগিয়ে নেবেন কি না তা এখনো ভাবনায় রেখেছেন জোকোভিচ।

গত বছরের নৈপুণ্যে ক্রীড়াবিশ্বের বর্ষসেরা পুরুষ খেলোয়াড়ের পুরস্কার লরিয়াস ওয়ার্ল্ড স্পোর্টস অ্যাওয়ার্ড জিতেছেন জোকোভিচ।

সেখানে এসেই তিনি জানিয়েছেন আগামীর ভাবনা, ‘আমার কোচ থাকা উচিত কি না তা আমি বিবেচনা করছি। জিমনজিকের সঙ্গে আমার খুব ভালো সময় কেটেছে। আমরা একসঙ্গে কাজ করার ব্যাপারে কথা বলছি। দেখা যাক, শিগগিরই আমি আমার সিদ্ধান্ত নেব।’
কোচেরও যে দরকার নেই এমনটা অবশ্য ভাবছেন না জোকোভিচ, ‘এমন না যে আমার কোচের প্রয়োজন নেই।

একটি মানসম্মত দলের জন্য কোচের প্রয়োজন আছে। কিন্তু আমি মনে করি, ক্যারিয়ারে এখন যে পর্যায়ে আছি, তাতে কোচ না থাকাটাও একটি বিকল্প পন্থা।’
আগামী মাসে শুরু হবে ফ্রেঞ্চ ওপেন। এরপর উইম্বলডন, অলিম্পিক গেমসের পর আছে ইউএস ওপেন। এসবের প্রস্তুতি নিতেই মাদ্রিদ ওপেনে না খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন জোকোভিচ।